বিনিয়োগ গুরু ওয়ারেন বাফেটের সঙ্গে মিল থাকায় সৌদি প্রিন্স আলওয়ালিদ বিন তালাল সৌদি আরবের ওয়ারেন বাফেট নামে পরিচিত। বাফেটের মতোই আলওয়ালিদ কৌশলী বিনিয়োগের মাধ্যমে তার ভাগ্য গড়েছেন। রাজপরিবারের সদস্য হওয়া সত্ত্বে নিজের একক প্রচেষ্টায় সৌদি আরবের শীর্ষ ধনী হয়েছেন তিনি। ব্লুমবার্গের বিলিয়নেয়ার ইনডেক্স অনুসারে বিশ্বের শীর্ষ ধনীদের মধ্যে আলওয়ালিদের বর্তমান অবস্থান ৯৩তম। তার সম্পদের পরিমাণ ১ হাজার ৪৫০ কোটি ডলার।

বিশ্বের শীর্ষ ধনীদের অনেকেই দরিদ্র থেকে ধনী হয়েছেন। কিন্তু প্রিন্স আলওয়ালিদের মাল্টি বিলিয়ন ডলারের সম্পদ অর্জনের গল্পটি অন্য অনেকের মতো নয়। সৌদি আরবের সবচেয়ে ধনী সৌদ রাজপরিবারে ১৯৫৫ সালে তার জন্ম। তিনি সৌদি আরবের প্রথম বাদশা ইবনে সৌদের নাতি এবং বর্তমান বাদশার পূর্বসূরি আব্দুল্লাহ সৌদের ভাতিজা। আলওয়ালিদের পিতা প্রিন্স তালাল সৌদি আরবের অর্থমন্ত্রী ছিলেন। তার মা প্রিন্সেস মোনা আল সোলহ ছিলেন লেবাননের প্রথম প্রধানমন্ত্রীর মেয়ে। শৈশবেই আলওয়ালিদের মধ্যে ভবিষ্যৎ উদ্যোক্তার গুণাবলি দেখা যায়। রিজ খানের লেখা বই ‘আলওয়ালিদ, বিজনেসম্যান, বিলিয়নেয়ার, প্রিন্স’ এ আলওয়ালিদের মা তার সম্পর্কে বলেছেন, ছোটবেলা থেকেই তার মধ্যে দৃঢ়প্রতিজ্ঞ চরিত্র দেখা যায়। একই বইয়ে আলওয়ালিদের বাল্যবন্ধু রাইদ এল সোলহ বলেন, প্রতিদিন স্কুল ছুটির পর ১ ঘণ্টা আমি আর আলওয়ালিদ মনোপলি খেলতাম। প্রতিবারই সে আমাকে খেলায় হারিয়ে দিত। আমি মনে করতাম, আমার বুদ্ধির জোরে তাকে হারিয়ে দেব, কিন্তু প্রতিবারই সে আমাকে হারিয়ে দিত। তাই আমি জানতাম সে প্রচুর অর্থ আয় করতে যাচ্ছে।